বিনা টিকিটে ট্রেন ভ্রমণ, ১৮ লক্ষাধিক টাকা জরিমানা

নিজস্ব প্রতিবেদক
  প্রকাশিত হয়েছেঃ  ০৫:৩৩ PM, ১১ অক্টোবর ২০২১

বিনা টিকিটে ট্রেন ভ্রমণ করায় ৬ হাজার ৬৫৫ যাত্রীকে জরিমানা করেছে বাংলাদেশ রেলওয়ের পাকশী রেলবিভাগ। এ সময় যাত্রীদের কাছ থেকে ১৮ লাখ ৩৫ হাজার ৫৭০ টাকা টাকা জরিমানা আদায় করা হয়েছে। সোমবার (১১ অক্টোবর) দুপুরে পাকশী বিভাগীয় বাণিজ্যিক কর্মকর্তার দফতর থেকে এসব তথ্য জানানো হয়। 

রেল বিভাগ সূত্রে জানা যায়, বিনা টিকিটের রেলভ্রমণ রোধে সেপ্টেম্বর মাসে বিশেষ টাস্কফোর্স গঠন করে পাকশী রেল বিভাগ। টাস্কফোর্সের প্রধান করা হয় পাকশী বিভাগীয় রেলওয়ের বাণিজ্যিক কর্মকর্তা নাসির উদ্দিনকে। অক্টোবরের শুরু থেকে ৯ তারিখ পর্যন্ত এ অভিযান চলে।

সূত্র জানায়, চলতি মাসের প্রথম সপ্তাহে রাজশাহী বিশ্ববিদ্যালয়ের বিভিন্ন ইউনিটের ভর্তি পরীক্ষা অনুষ্ঠিত হয়। দেশের বিভিন্ন প্রান্ত থেকে বিনা টিকিটে রাজশাহী বিশ্ববিদ্যালয়ে ভর্তিচ্ছু ছাত্র-ছাত্রীদের যাতায়াত বৃদ্ধি পায়। এতে সাধারণ যাত্রীরা দুর্ভোগ ও বিড়ম্বনার শিকার হন। বিষয়টি টাস্কফোর্স টিমের নজরে আসায় বিনা টিকিটধারী যাত্রীদের বিরুদ্ধে তারা বিশেষ অভিযান চালানোর সিদ্ধান্ত নেয়।

পাকশী বিভাগীয় বাণিজ্যিক কর্মকর্তা দফতর সূত্রে জানা গেছে, অক্টোবরের প্রথম দিন থেকে শুরু করা হয় টাস্কফোর্সের বিশেষ অভিযান। গুরুত্বপূর্ণ জংশন ও স্টেশনের মধ্যে পাবনার ঈশ্বরদী, কুষ্টিয়ার পোড়াদহ, খুলনা, সান্তাহার ও রাজশাহীতে বিভাগীয় বাণিজ্যিক কর্মকর্তা নাসির উদ্দিনের সমন্বয়ে ৯ দিন টাস্কফোর্সের বিশেষ অভিযান চলে। এ সময় ৬ হাজার ৬৫৫ জন যাত্রীর কাছ থেকে জরিমানাসহ ভাড়া বাবদ ১৮ লাখ ৩৫ হাজার ৫৭০ টাকা আদায় করা হয়। যা পাকশী রেল বিভাগের স্মরণীয় একটি বিশেষ অভিযান।

অভিযানের সময় প্ল্যাটফর্মের প্রবেশ মুখ ও স্টেশন থেকে বের হওয়ার পথে রেলওয়ে নিরাপত্তা বাহিনী, রেলওয়ে পুলিশ মোতায়েন ও নজরদারি জোরদার করা হয়। ভ্রাম্যমাণ টিকিট পরিদর্শকেরা পাকশী বিভাগের গুরুত্বপূর্ণ স্টেশনে ৩০টির বেশি চলন্ত ট্রেনে টানা অভিযান পরিচালনা করে রেকর্ড পরিমাণ জরিমানা আদায় করেছে।

অভিযানের সময় টাস্কফোর্স টিমের উদ্যোগে বিশ্ববিদ্যালয়ে ভর্তিচ্ছু ছাত্রছাত্রীরা যাতে সহজে যাতায়াত করতে পারে সেজন্য রাজশাহীগামী প্রত্যেক ট্রেনে অতিরিক্ত কোচ সংযোজন করা হয়। এ ছাড়াও আন্তঃনগর সিল্কসিটি, পদ্মা, সাগরদাঁড়ি, কপোতাক্ষ, বরেন্দ্র, তিতুমীর এক্সপ্রেসসহ ছয়টি ট্রেনের সাপ্তাহিক ছুটি বাতিল করা হয়।

টাস্কফোর্সের প্রধান পাকশী বিভাগীয় বাণিজ্যিক কর্মকর্তা নাসির উদ্দিন বলেন, যাত্রীসেবা ও রেলের আয় বাড়ানো এই অভিযানের মূল লক্ষ্য। পাকশী বিভাগে বিনা টিকিটের যাত্রীদের বিরুদ্ধে টাস্কফোর্সের এমন অভিযান অব্যাহত থাকবে। এ জন্য তিনি সকলের সহযোগিতা কামনা করেন।

আপনার মতামত লিখুন :