ঢাকা ২৪ জুলাই, ২০২৪
সংবাদ শিরোনাম
ঢাবির হলে হলে ছাত্র রাজনীতি নিষিদ্ধের ঘোষণা আজ গায়েবানা জানাজা ও কফিন মিছিল কর্মসূচি শিক্ষার্থীর মৃত্যুর খবরে ঢাকা কলেজে হল ছাড়ার হিড়িক বেগম রোকেয়া বিশ্ববিদ্যালয় বন্ধ, হল ছাড়ছেন শিক্ষার্থীরা রাজধানীতে তাজিয়া মিছিলের প্রস্তুতি শুরু বিএনপি কার্যালয়ে মিলল ১০০ ককটেল ও ৫০০ লাঠি মাস্টার প্ল্যানের অংশ হিসেবে মাঝরাতে বিএনপি কার্যালয়ে অভিযান জাফর ইকবালের বই বিক্রি না করার ঘোষণা বুকস অব বেঙ্গলের ৫ বিভাগে অতি ভারী বৃষ্টির আভাস, ভূমিধসের শঙ্কা সায়েন্সল্যাবে শিক্ষার্থীদের অবরোধ, যানচলাচল বন্ধ

কম্পেয়ার শব্দটাই বিপজ্জনক : এস এম মিজান

#

নিজস্ব প্রতিবেদক

১০ এপ্রিল, ২০২৩,  1:20 PM

news image

আমরা কত কিছুর সাথে কত কিছুই না কম্পেয়ার করি। কম্পেয়ার করতে আমাদের ভালই লাগে। কম্পেয়ার নামক খেলায় আমরা সবাই পারদর্শী। আমরা এতটা কম্পেয়ারে ব্যস্ত থাকি যার কারনে আমরা নিজেকেই নিজে ভুলে যাই। আমরা শুধু পারিনা কম্পেয়ারের সাথেও কম্পেয়ারের কম্পেয়ার করতে। নইলে তাও করতাম।

আমার বউয়ের সাথে অমুকের বউয়ের কম্পেয়ার,অমুকের স্বামীর সাথে আমার কম্পেয়ার। আমার পদ পদবীর সাথে তমুকের পদ পদবীর কম্পেয়ার,তমুক আবার আমার সাথে কম্পেয়ার করে। 

আমার এক বন্ধু আছে তার ধ্যান জ্ঞান চিন্তা চেতনায় সমসময় কম্পেয়ার ঘোরে। তার ধ্যান একটাই,কম্পেয়ারে তার চেয়ে কে উপরে আর কে নীচে। বেচারা এই কম্পেয়ারের খেলায় ঠিকমতো ঘুমাতেও পারেনা। কে কত বছরে প্রমোশনে কত ইঞ্চি উপরে ঊঠেছে, সে তত বছরে প্রমোশন পেয়ে ইঞ্চি ফুট শেষ করে আরব আমেরিকা সুইডেন চলে যেতে পারবে এমন হিসাব তার পাক্কা মুখস্ত। এছাড়াও কম্পেয়ারে তার চেয়ে কোন ডিপার্টমেন্টে কি কি সুযোগ সুবিধা কম বা বেশি বিরাজমান তা নিয়া সে একটা বইও লিখতে পারবে। কারন সে কমপেয়ার নিয়াই পড়ে থাকে।  

 এবার বলি আরেক বন্ধুর ঘটনা। কম্পেয়ারে সে আরও ফাস্ট। সে অন্যের সাথে কমপেয়ার করতে করতে চরম হতাশায় নিমজ্জিত হয়ে গেছে। তাকে দেখলে মনে হয় যে কোন সময় সে সুইসাইড করে ফেলতে পারে। তার ধারনা সে জীবনে কিছুই করতে পারেনি। তার চাকরি অন্যের চেয়ে খারাপ। সে বি.ছি:এস (তার হতাশা কমানোর জন্য তাকে এভাবে বুঝাই)কেন হতে পারলো না এজন্য কয়েক বছর ধরে এতটাই মন খারাপ করে থাকে দেখলে মনে হবে কোমায় চলে গেছে। অথচ সে একজন ব্যাংকার। সে যদি তার চেয়ে  নীচের একজনের সাথে কমপেয়ার করে তাহলেই হতাশা থেকে বেরিয়ে আসতে পারে। কিন্তু তা সে করেনা।

কম্পেয়ারের যেমন খারাপ দিক আছে তেমনি ভাল দিকও আছে। সবসময় কম্পেয়ার করতে হবে নিচের জনের সাথে। আমার চেয়ে যার সব বিষয়ে কম আছে তার সাথে কম্পেয়ার করলেই জীবনের সকল সমস্যার নিশ্চিত সমাধান হয়ে যায়। নীচের কবিতাই তার প্রমান

একদা ছিল না জুতা চরণ যুগলে 

দহিল হৃদয় মম সেই ক্ষোভানলে ।

ধীরে ধীরে চুপি চুপি দুঃখাকুল মনে 

গেলাম ভজণালয়ে ভজন কারনে । 

দেখি সেথা এক জন পদ নাহি তার 

অমনি জুতার খেদ ঘুচিল আমার । 

পরের দুঃখের কথা করিলে চিন্তন 

আপনার মনে দুঃখ থাকে কতক্ষণ ৷

logo
সম্পাদক ও প্রকাশক মো: মনিরুজ্জামান মনির